Bangladesh News Network

ন্যায্য মূল্য না পেয়ে রাস্তায় চামড়া ফেলে দিলেন ব্যবসায়ীরা

0 4,850

ব্যবসায়ীদের অভিযোগ, কেনা দামেও চামড়া নেননি আড়তদারেরা। কেউ কেউ কিনতেই চাননি, তাই বাধ্য হয়ে রাস্তায় ফেলে দেওয়া হয়েছে।

বাদল নামে এক মৌসুমী ব্যবসায়ী সংবাদমাধ্যমের কাছে অভিযোগ করে বলেন, ৩০০ থেকে ৫০০ টাকায় চামড়া কিনেছি। কিন্তু আড়তদাররা গড়ে ৩০০ টাকা করে দাম দিতে চান।

এভাবে দেনদরবারের নামে গভীর রাত পর্যন্ত বসিয়ে রাখার পর বলা হয়, চামড়া পচে গেছে। এখন আর নেওয়া যাবে না।

ন্যায্য মূল্য না পেয়ে পুরান ঢাকার পোস্তা ও ঢাকেশ্বরী মন্দিরের আশেপাশের রাস্তায় কোরবানির পশুর চামড়া ফেলে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। বৃহস্পতিবার (২২ জুলাই) সকাল ১০টার দিকে এসব এলাকার প্রধান সড়কে শত শত চামড়া পড়ে থাকতে দেখা যায়। পরে সেগুলো নিয়ে যায় নগরীর পরিচ্ছন্নতা কর্মীরা।

তিনি বলেন, সারারাত অপেক্ষায় ছিলাম যদি কোনো গতি করা যায়। শেষ পর্যন্ত ভোরে এসব চামড়া রাস্তায় ফেলে দেই।

পোস্তার কাঁচা চামড়া ব্যবসায়ী ও বাংলাদেশ হাইড অ্যান্ড স্কিন মার্চেন্ট অ্যাসোসিয়েশনের মহাসচিব হাজি টিপু সুলতান বলেন, আমরা সরকারের বেঁধে দেওয়া দামে, অনেক ক্ষেত্রে সেই দামের চেয়েও বেশি দামে চামড়া কিনে নিয়েছি। তাই বলে তো পঁচা চামড়া কিনব না।

এদিকে, রাস্তায় মৌসুমী ব্যবসায়ীদের চামড়ার ফেলে দেওয়ার বিষয়টি স্বীকার করেছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরশনের মেয়র ব্যারিস্টার ফজলে নুর তাপস।

তিনি বলেন, মৌসুমী ব্যবসায়ীরা চামড়াগুলো হয়তো বিক্রি করতে পারেননি। তাই বিভিন্ন জায়গায়, নর্দমার সামনে চামড়াগুলো ফেলে গেছেন। এটা অত্যন্ত গর্হিত কাজ।

Comments
Loading...
%d bloggers like this: