করোনায় খুলনায় প্রথম মৃত্যু: লকডাউন ২০ বাড়ি

0
179

খুলনায় করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে একজনের মৃত্যু হয়েছে। মৃতের নাম নুর আলম খান (৪৩)। তিনি রূপসা উপজেলার রাজাপুর গ্রামের গোলাম খানের ছেলে। এ পর্যন্ত ৫ জন আক্রান্ত হলেও খুলনায় এটি প্রথম মৃত্যু।

আজ মঙ্গলবার সকালে তার মৃত্যু হলেও নমুনা পরীক্ষার পর রিপোর্ট পজিটিভ এলে সন্ধ্যায় বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন খুলনা মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ ডা. মো. আব্দুল আহাদ।

মৃতের স্ত্রী জানান, তিনি আইটেল মোবাইল কোম্পানির সার্ভিসিং ইঞ্জিনিয়ার ছিলেন। তার অফিস মহানগরীর পিকচার প্যালেস মোড়ের হোটেল গোল্ডেন কিং ভবনের চতুর্থ তলায়। ২৫ মার্চ থেকে অফিস বন্ধ রয়েছে। এরপর থেকে তিনি খুলনার বাইরে যাননি। শুধুমাত্র রাজাপুর বাজারে মাঝে মধ্যে বাজার করতে যেতেন। এরপর গত পাঁচ দিন ধরে জ্বর, সর্দি, কাশি, শ্বাসকষ্ট ও ডায়রিয়ায় আক্রান্ত ছিলেন।

সকালে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ইমারজেন্সি মেডিকেল অফিসার ডা. আশরাফুর রহমান জানান, সকাল পৌনে ৯টার দিকে নুর আলম খান নামে একজনকে হাসপাতালে নিয়ে আসে তার স্বজনরা। তিনি হাসপাতালে আসার আগেই মারা গেছেন।

খুমেকের অধ্যক্ষ ডা. আব্দুল আহাদ জানান, আজ মঙ্গলবার কলেজের পিসিআর ল্যাবে ১৯১ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়। যার মধ্যে সকালে মারা যাওয়া রূপসা উপজেলার রাজাপুরের নুর আলম খান এর করোনা পজেটিভ শনাক্ত হয়। এ নিয়ে খুলনায় করোনা আক্রান্ত ৫ জন শনাক্ত হয়েছেন এবং এটিই খুলনায় প্রথম মৃত্যু।

রূপসা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নাসরিন আক্তার বলেন, রূপসার মারা যাওয়া ওই ব্যক্তির বাড়ির পার্শ্ববর্তী ২০টি বাড়ি লকডাউন করা হয়েছে। এছাড়া তার সংস্পর্শে যারা এসেছিলেন তাদের খোঁজ নেওয়া হচ্ছে। তাদের বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টিনে রাখা হবে।