আগামীকাল থেকে ১২টি শর্তসাপেক্ষে মসজিদে নামাজ আদায় করা যাবে

0
119

শারীরিক দূরত্ব মেনে আগামীকাল জোহর থেকে পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ ও তারাবি মসজিদে আদায় করা যাবে। এমন নির্দেশনা দিয়েছে ইসলামিক ফাউন্ডেশন। করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে মসজিদে নামাজ পড়া এতোদিন বন্ধ ছিলো।

গত ৬ এপ্রিল ধর্ম মন্ত্রণালয় মসজিদে জামাত বন্ধের ঘোষণা দিয়ে বিজ্ঞপ্তি দেয়। বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, মসজিদে কোন জামাতে ৫ জনের বেশি অংশ নিতে পারবেন না। আর শুক্রবার জুমার নামাজের জামাতে অংশ নিতে পারবেন সর্বোচ্চ দশ জন। তারাবির নামাজে সর্বোচ্চ ১২জন অংশ নিতে পারবেন বলেও আরেক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছিলো।

জামাতে নামাজ আদায়ে নিষেধাজ্ঞা শিথিল করেছে সরকার। আগামীকাল ৭ই মে জোহরের নামাজ থেকে শুধুমাত্র সুস্থ নামাজিরা স্বাস্থ্যবিধি মেনে নামাজ আদায় করতে পারবেন। এর আওতায় ফরজ ও তারাবি নামাজ অন্তর্ভুক্ত। শিশু, বয়স্ক, অসুস্থ এবং অসুস্থ ব্যক্তিদের সেবায় নিয়োজিতদের জন্য নিষেধাজ্ঞা বহাল থাকবে।

বুধবার, ধর্ম মন্ত্রণালয় বেশকিছু নির্দেশনা সংবলিত একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করে। সেখানে উল্লেখ করা হয়, প্রত্যেক নামাজের আগে মসজিদ সম্পূর্ণ জীবাণুমুক্ত করতে হবে। মসজিদে কার্পেট বিছানো যাবে না। মসজিদের প্রবেশদ্বারে জীবাণুমুক্তকরণ ব্যবস্থা থাকতে হবে। মুসল্লিদের মুসল্লিদের নিজ নিজ জায়নামাজ সাথে আনতে হবে এবং মাস্ক না পরে মসজিদে ঢোকা যাবে না।

কাতারে দাঁড়িয়ে নামাজ আদায়ের ক্ষেত্রে ৩ ফুট দূরত্ব মানতে হবে এবং এক কাতার পরপর কাতারের ব্যবস্থা থাকতে হবে। মসজিদে ইফতার ও সেহরির আয়োজন করা যাবে না। সর্বোচ্চ ৫ জন নিরাপদ দূরত্ব বজায় রেখে ইতেকাফ এর জন্য মসজিদে অবস্থান করতে পারবেন।